রবিবার, ২ অক্টোবর ২০২২
১৭ আশ্বিন ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

জালিয়াতি : নর্দান ইউনিভার্সিটির চেয়ারম্যান গ্রেফতার

নিজস্ব প্রতিবেদক | আপডেট: সোমবার, জানুয়ারী ১০, ২০২২

জালিয়াতি : নর্দান ইউনিভার্সিটির চেয়ারম্যান গ্রেফতার
২০ কোটি টাকা আত্মসাৎ ও জাল দলিলে জমি লিখে নেওয়ার অভিযোগে বেসরকারি শিক্ষা প্রতিষ্ঠান নর্দান ইউনিভার্সিটির ট্রাস্টি বোর্ডের চেয়ারম্যান আবু ইউসুফ মো. আব্দুল্লাহকে গ্রেফতার করা হয়েছে। 

সোমবার রাজধানীর বনানীতে শিক্ষা প্রতিষ্ঠানটির অফিস থেকে পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশনের (পিবিআই) একটি দল তাকে গ্রেফতার করে।  

পিবিআই জানায়, খিলক্ষেত থানার একটি মামলায় মো. আব্দুল্লাহকে গ্রেফতার করা হয়। আশিয়ান ল্যান্ডস ডেভেলপমেন্টের উপ-ব্যবস্থাপনা পরিচালক সাইফুল ইসলাম ভূইয়ার করা মামলায় তিনি গ্রেফতার হন। মামলায় তিনি ছাড়াও আরও কয়েকজনের বিরুদ্ধে জাল-জালিয়াতি করে জমি দখল, প্রতারণা ও হুমকির অভিযোগ আনা হয়।

এজাহারে বলা হয়, নর্দান ইউনিভার্সিটির চেয়ারম্যান মো. আব্দুল্লাহ বিশ্ববিদ্যালয়ের স্থায়ী ক্যাম্পাস করতে রাজধানীর দক্ষিণখান মৌজায় আশিয়ান ল্যান্ডস ডেভেলপমেন্ট থেকে পাঁচ বিঘা জায়গা কেনেন। ওই জমির ৫০ কোটি টাকা মূল্যের মধ্যে বিভিন্ন সময়ে ৩০ কোটি টাকা পরিশোধ করলেও বাকি টাকা না দিয়েই ভবন নির্মাণ শুরু করেন। তার কাছ থেকে টাকা চাইলে বিভিন্ন সময়ে তা পরিশোধের আশ্বাস দেন। কিন্তু সম্প্রতি টাকা চাইতে গেলে তিনি দাবি করেন জায়গাটি ৯ কোটি ৩৩ লাখ টাকায় তিনি কিনে নিয়েছেন। এ সংক্রান্ত জাল স্টাম্পের দলিলও দেখানো হয়। যা প্রতারণা ও জালিয়াতি করে বিশ্বাস ভঙ্গ করা হয়েছে।

পিবিআইয়ের একজন কর্মকর্তা জানিয়েছেন, ওই মামলায় প্রধান আসামি মো. আব্দুল্লাহ। এছাড়া মো. রিয়াজুল আলম ও সেলিম মুন্সী নামে দুই জনের নাম উল্লেখ করে অজ্ঞাত আরও ৬ থেকে ৭ জনকে আসামি করা হয়েছে। মামলার তদন্ত চলছে। গ্রেফতার হওয়া প্রধান আসামি নর্দান ইউনিভার্সিটির চেয়ারম্যান ছাড়াও প্রাসাদ নির্মাণ লিমিটেডের চেয়ারম্যান।
0 Comments